10 হাজার টাকায় ব্যবসা আইডিয়া

আপনি কি 10 হাজার টাকায় ব্যবসা করতে চান ? বর্তমান সময়ে সবাই ব্যবসা করতে চায়। কিন্তু পর্যাপ্ত পরিমাণ পুঁজি না থাকার কারণে ব্যবসা করতে সাহস পায় না।

আপনি জেনে খুশি হবেন এমন কিছু ব্যবসা রয়েছে যেগুলো আপনি খুব অল্প টাকায় বা অল্প পুঁজি দিয়ে শুরু করতে পারবেন খুব সহজে। তাই কোন ধরনের টেনশন না করে আজই এই ব্যবসা গুলো জেনে ব্যবসা শুরু করে দিন।

আর প্রত্যেকটি ব্যবসায় সফল হওয়ার জন্য অবশ্যই আগ্রহ থাকতে হয় , সময় দিতে হয় এবং পারদর্শিতা অর্জন করতে হয় বা দক্ষতা থাকতে হয় তাহলে খুব সহজেই ব্যবসায় সফলতা অর্জন করা যায় দ্রুত সময়ে।

অতএব আজ আমি 10 হাজার টাকায় ব্যবসা সম্পর্কে বিস্তারিতভাবে আলোচনা করব। আশা করি আপনি ভালো একটি আইডিয়া গ্রহণ করতে পারবেন ।

10 হাজার টাকায় ব্যবসা
10 হাজার টাকায় ব্যবসা

10 হাজার টাকায় ব্যবসা আইডিয়া

এখানে আমি প্রায় দশটি ব্যবসা সম্পর্কে বিস্তারিতভাবে আলোচনা করবো বা আইডিয়া দিব যেগুলো প্রত্যেকটি 10 হাজার টাকা দিয়ে শুরু করা সম্ভব। চলুন আলোচনা শুরু করা যাক।

ফলের জুসের ব্যবসা

এ ব্যবসাটি অনেক চাহিদা পূর্ণ। কেননা সবাই ফল খেতে পছন্দ করে। এর চাহিদা কমবে না বরং ধীরে ধীরে আরো বাড়তে থাকবে।

10 হাজার টাকায় ফলের জুসের ব্যবসা শুরু করতে পারেন। তবে এ ব্যবসায় সাফল্য অর্জন করার জন্য অবশ্যই আপনাকে এমন একটি স্থান নির্ধারণ করতে হবে যে স্থানে লোক জনের সমাগম বেশি। যেমন :

  • বাজার
  • বাসস্টপ
  • স্কুল-কলেজ
  • গার্মেন্টস
  • শহর

ইত্যাদি এই সমস্ত জায়গায় লোকজনের সমাগম বেশি। আপনি এ সমস্ত স্থানে ফলের জুসের ব্যবসা করতে পারেন। এ সমস্ত স্থানে ব্যবসা করলে খুব দ্রুত সফলতা অর্জন করতে পারবেন।

হস্তশিল্প সামগ্রী বিক্রি করা

হস্তশিল্প জিনিস অর্থাৎ হাতে তৈরি জিনিসপত্র সকলেই পছন্দ করে। হস্তশিল্পের প্রতি মানুষের চাহিদা অনেক বেশি। তাই আপনি 10 হাজার টাকায় হস্তশিল্পের ব্যবসা শুরু করতে পারেন।

পাশাপাশি অনলাইনে ও বিক্রি করতে পারেন। কেননা বর্তমান সময়ে অনলাইনের প্রতি মানুষ বেশি ঝুকছে। অনলাইন থেকে কেনাকাটা করতে পছন্দ করে।

অতএব আপনি এই সুযোগটা কাজে লাগিয়ে অনলাইনে হস্তশিল্প সামগ্রী বিক্রি করতে পারেন ঘরে বসে।

মোবাইল ফোন রিচার্জ এর ব্যবসা

এই ব্যবসাটি অনেক চাহিদা পূর্ণ। কেননা মোবাইল যতদিন থাকবে ততদিন ফোন রিচার্জ করতে হবে। রিচার্জ এর চাহিদা বাড়বে কমবে না।

10 হাজার টাকায় ফোন রিচার্জ এর ব্যবসা করতে পারেন। তবে এই ব্যবসায় সফলতা অর্জন করার জন্য অবশ্যই আপনাকে এমন একটি স্থান বাছাই করতে হবে বা নির্ধারণ করতে হবে যে সমস্ত স্থানে জনসমাগম বেশি।

যেমন বাজার , শহর , বাস স্টপেজ ইত্যাদি। এ সমস্ত স্থানে লোকজনের সমাগম বেশি তাই এ সমস্ত স্থানে আপনি যদি ব্যবসা শুরু করেন তাহলে খুব সহজেই অল্প সময়ে সফলতা অর্জন করতে পারবেন।

মোবাইল রিচার্জ এর পাশাপাশি বিকাশ রকেট ইত্যাদির ব্যবসা শুরু করতে পারেন। তাহলে আরো বেশি লাভবান হতে পারবেন।

পরিশেষে বলবো : উপরে 10 হাজার টাকায় ব্যবসা সম্পর্কে বিস্তারিতভাবে আলোচনা করা হলো। যদি বিষয়গুলো আপনি ফলো করেন তাহলে খুব সহজেই সফলতা অর্জন করতে পারবেন।

যদি লেখাটি ভালো লেগে থাকে অবশ্যই কমেন্ট করে জানাবেন। বন্ধু বান্ধবদের সাথে শেয়ার করবেন। ধন্যবাদ।

আরো পড়ুন :-

  1. কসমেটিকস পাইকারি বাজার কোথায় কোথায় রয়েছে ?
  2. ছাত্রদের জন্য ব্যবসা আইডিয়া ১৮টি যেগুলো খুবই লাভজনক
  3. ক্ষুদ্র ব্যবসার তালিকা
  4. ঘরোয়া ব্যবসা

Leave a Reply

Your email address will not be published.

eleven + twelve =