ঘরোয়া ব্যবসা ৫টি

আপনি কি ঘরোয়া ব্যবসা সম্পর্কে জানতে চান ? বর্তমান সময়ে কেউ বেকার বসে থাকতে চায় না। সবাই ইনকাম করতে চায়। এই হিসেবে অনেকেই ব্যবসা করতে চায়।

আপনি কি জানেন বর্তমান সময়ে ঘরে বসে ব্যবসা করা যায়। আপনি যদি ভাল ভাবে মনোযোগ দিয়ে ব্যবসা করেন তাহলে ১০০% ঘরে বসে ব্যবসায় সফলতা অর্জন করবেন। তাই আজ আমি বলবো ঘরোয়া ব্যবসা এবং কিভাবে এই ব্যবসা শুরু করে ইত্যাদি আরও নানান বিষয়।

ঘরোয়া ব্যবসা
ঘরোয়া ব্যবসা

লাভজনক ঘরোয়া ব্যবসা

আমি এখানে এমন কিছু লাভজনক ব্যবসার কথা বলব যেগুলো প্রত্যেকটি ঘরে বসে বসে করতে পারবেন। কোন ধরনের ঝামেলা ছাড়াই। তাই আপনি যদি ঘরে বসে বসে ব্যবসায় সফলতা অর্জন করতে চান অবশ্যই আপনাকে সময় দিতে হবে এবং পরিশ্রম করতে হবে। তাহলে সফলতা আপনার পিছনে পিছনে আসবে।

১. সবচেয়ে জনপ্রিয় ঘরোয়া ব্যবসা হল রিসেলার বিজনেস করা।

রিসেলার বলা হয় এমন একটি ব্যবসাকে যেখানে কোন কোম্পানির পণ্য বিক্রি করা। অর্থাৎ কোম্পানি আপনাকে ওই পণ্যের মূল্য নির্ধারণ করে দিবে তারপর আপনি ওই পণ্যের নির্ধারিত মূল্য থেকে অতিরিক্ত যত টাকা বিক্রি করতে পারবেন ওই টাকা আপনার।

সুতরাং এটা এমন একটি ব্যবসা যেখানে কোন ধরনের পুঁজি লাগেনা। পাশাপাশি ডেলিভারি করার কোন ঝামেলা নেই। কেননা আপনার দায়িত্ব শুধু বিক্রি করা। বাকি যত ধরনের কাজ রয়েছে কোম্পানির করবে।

রিসেলার ব্যবসায় সফল হওয়ার জন্য আপনাকে একটি বিষয়ে পারদর্শী হতে হবে সেটা হল মার্কেটিং। আপনি যত ভালো মার্কেটিং করতে পারবেন তত রিসেলার বিজনেস এর মধ্যে সফলতা অর্জন করতে পারবেন। যদি আপনার মার্কেটিং এর মধ্যে কোন পারদর্শী না থাকে তাহলে আপনি শিখে নিতে পারেন।

বর্তমানে ইউটিউবে প্রচুর ভিডিও রয়েছে এ মার্কেটিং সম্পর্কে। আর যদি আপনি ফ্রিতে শিখতে না চান তাহলে বর্তমানে অনেক কোম্পানি রয়েছে যারা ডিজিটাল মার্কেটিং শিখাচ্ছে টাকার বিনিময়ে। ইচ্ছে করলে আপনি তাদের কাছ থেকে শিখতে পারেন। যখন আপনি মার্কেটিংয়ের ক্ষেত্রে পারদর্শী হবেন তখন ১০০% আপনি রিসেলার বিজনেস এর মধ্যে সফলতা অর্জন করতে পারবেন।

আপনি যদি বাংলাদেশ থেকে রিসেলার বিজনেস শুরু করতে চান তাহলে বাংলাদেশী একটি প্রশিদ্ধ কোম্পানি রয়েছে তার নাম হলো শপআপ। এই কোম্পানিটি বাংলাদেশের মধ্যে অনেক প্রসিদ্ধিলাভ করেছে। অতএব আপনি ইচ্ছে করলে তাদের পণ্যগুলো মার্কেটিং করে প্রতিমাসে ভালো পরিমাণ টাকা ইনকাম করতে পারেন।

২. ঘরোয়া ব্যবসা হল উপহার বিক্রির ব্যবসা করা

বর্তমান সময়ে সবাই তার প্রিয়জনকে উপহার দিতে পছন্দ করে। বিশেষ করে বিভিন্ন দিবস বা অনুষ্ঠানকে কেন্দ্র করে তারা তার প্রিয়জনকে উপহার দেয়। তাই উপহারসামগ্রীর চাহিদা অনেক বেশি। আপনি চাইলে ঘরে বসে বসে উপহার সামগ্রীর ব্যবসা শুরু করতে পারেন।

যদি আপনি মনোযোগ দিয়ে ব্যবসা করেন ও ভালো ভালো উপহার সংগ্রহে রাখতে পারেন। তাহলে খুব সহজেই সফলতা অর্জন করতে পারবেন।

বর্তমানে মানুষ খুবই ব্যস্ত থাকে তাই তারা মার্কেটে গিয়ে পছন্দের গিফট খোঁজে তা প্যাকিং করে প্রিয়জনের কাছে পাঠাতে খুবই ঝামেলার মনে করে। তাই তারা সহজ কিছু খুঁজে। আপনি এই সুযোগটা কাজে লাগিয়ে ঘরে বসেই এ ব্যবসা শুরু করতে পারেন।

৩. মেয়েদের ঘরোয়া ব্যবসা হল ঘরে তৈরি খাবারের ব্যবসা

আগের মত বর্তমানে মানুষ হোটেলের খাবার পছন্দ করে না। বর্তমানে মানুষ ঘরে তৈরি খাবার পছন্দ করেন। দিন দিন এর চাহিদা বেড়েই চলছে। আপনি এই সুযোগটা কাজে লাগাতে পারেন।

অর্থাৎ ঘরে বিভিন্ন আইটেমের মজার মজার খাবার তৈরি করে তা অনলাইনের মাধ্যমে অথবা সরাসরি বিক্রি করতে পারেন। অথবা কোন কোম্পানির আন্ডারে ও বিক্রি করতে পারেন।

যদি আপনি মজাদার খাবার তৈরি করতে পারেন তাহলে দেখবেন এর চাহিদা দিন দিন বাড়তেই থাকবে। খুব অল্প দিনে আপনি সফলতা উচ্চ শিখরে পৌঁছে যাবেন।

খাবার বিক্রি করার নিয়ম

১. আপনি নিজে নিজেই অনলাইনে মাধ্যমে বিক্রি করতে পারেন। এর জন্য আপনি ফেসবুক অথবা ইউটিউব এর মাধ্যমে প্রচার প্রসার করতে পারেন।

২. অথবা কোন অনলাইন কোম্পানির আন্ডারে কাজ করতে পারেন। যেমন : foodpeon , foodpanda ইত্যাদি।

অথবা আপনি সরাসরি বিক্রি করতে পারেন কোন একটি দোকানের মাধ্যমে। অথবা আপনার আশপাশে খাবার ডেলিভারি করে। মোটকথা আপনি খুব সহজেই ঘরে নানান ধরনের আইটেমের খাবার তৈরি করে প্রতিমাসে ভালো পরিমাণ টাকা ইনকাম করতে পারেন।

৪. ঘরে বসে টিউশন করে ইনকাম

এই মাধ্যমটি জনপ্রিয় একটি মাধ্যম। আপনি ঘরে বসে খুব সহজে টিউশন করে অর্থাৎ পড়িয়ে প্রতি মাসে ভালো টাকা ইনকাম করতে পারবেন। অর্থাৎ টিউশন আপনি দুইভাবে করতে পারেন।

  • সরাসরি পড়াতে পারেন ।
  • অনলাইনের মাধ্যমে বিভিন্ন ক্লাস করে প্রতিমাসে ভালো থাকে ইনকাম করতে পারেন।

একটি বিষয় খেয়াল রাখবেন আপনি চেষ্টা করবেন ওই বিষয়ে ক্লাস করা যে বিষয়ে আপনি পারদর্শী। এতে আপনি খুব সহজেই সফলতার উচ্চ শিখরে পৌঁছতে পারবেন। আশা করি এই ঘরোয়া ব্যবসা এর আইডিয়া খুব ভালো লেগেছে। সফলতা অর্জন করার জন্য অবশ্যই মনোযোগ ও পরিশ্রমের সাথে এই ব্যবসাটি করতে হবে।

৫. ঘরে বসে এফিলিয়েট মার্কেটিং করে ইনকাম

এফিলিয়েট মার্কেটিং জনপ্রিয় একটি মাধ্যম ঘরে বসে অনলাইন থেকে ইনকাম করার। এফিলিয়েট মার্কেটিং সম্পর্কে মোটামুটি সকলেরই জানা আছে।

পড়ুন : এফিলিয়েট মার্কেটিং কিভাবে শুরু করবো ?

এফিলিয়েট মার্কেটিংয়ের ক্ষেত্রে সবচেয়ে যে বিষয়টা গুরুত্বপূর্ণ সেটা হল মার্কেটিংয়ের ক্ষেত্রে পারদর্শী হওয়া। আপনি যত পারদর্শী হবেন মার্কেটিংয়ের ক্ষেত্রে ততো এফিলিয়েট মার্কেটিংয়ের ক্ষেত্রে সফলতা অর্জন করতে পারবেন।

যদি আপনি মার্কেটিং এর মধ্যে অভিজ্ঞ হন তাহলে তো ভালো কথা। আর যদি মার্কেটিংয়ের ক্ষেত্রে অভিজ্ঞ না হন তাহলে আপনি মার্কেটিং শিখতে পারেন। ফ্রিতে শিখতে পারেন আবার টাকা ব্যয় করে শিখতে পারেন।

পরিশেষে বলব : উপরে ঘরোয়া ব্যবসা সম্পর্কে পাঁচটি আইডিয়া দিলাম। যদি এই আইডিয়া গুলো আপনার ভালো লেগে থাকে অবশ্যই কমেন্ট করে জানাবেন। পাশাপাশি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করবেন। ধন্যবাদ।

আরো পড়ুন :-

  1. কসমেটিকস পাইকারি বাজার কোথায় কোথায় রয়েছে ?
  2. ছাত্রদের জন্য ব্যবসা আইডিয়া ১৮টি যেগুলো খুবই লাভজনক
  3. ক্ষুদ্র ব্যবসার তালিকা

Leave a Comment