ক্ষুদ্র ব্যবসার তালিকা ১১টি

আপনি কি ক্ষুদ্র ব্যবসার তালিকা জানতে চান ? ব্যবসা সবাই করতে চায়। কিন্তু পুঁজির অভাবে অনেকেই ব্যবসা শুরু করতে পারে না। তবে আপনি জেনে খুশি হবেন যেমন এমন কিছু ব্যবসা রয়েছে যে ব্যবসা গুলো অল্প পুঁজি দিয়ে শুরু করতে পারেন।

তাই আজ আমি ক্ষুদ্র ব্যবসার তালিকা সম্পর্কে বিস্তারিতভাবে আলোচনা করব যাতে করে খুব সহজেই অল্প পুঁজিতে ব্যবসা শুরু করতে পারেন।

ক্ষুদ্র ব্যবসার তালিকা
ক্ষুদ্র ব্যবসার তালিকা

ক্ষুদ্র ব্যবসার তালিকা

এখানে আমি ১১টি ব্যবসা সম্পর্কে আলোচনা করব। যদি এই ব্যবসা গুলো ফলো করেন তাহলে খুব সহজেই আপনি অল্প পুঁজি লাগিয়ে ব্যবসা শুরু করতে পারবেন।

১. অনলাইন ই-কমার্স ব্যবসা শুরু করতে পারেন

বর্তমানে মানুষ অনলাইনের প্রতি বেশি বেশি ঝুঁকছে। অনলাইনে কেনাকাটার পরিমাণ ধীরে ধীরে বাড়ছে। সুতরাং আপনি সুযোগটি কাজে লাগাতে পারেন। অর্থাৎ ই-কমার্স ব্যবসা শুরু করতে পারেন। এ ব্যবসায় সফল হওয়ার জন্য অবশ্যই আপনাকে কয়েকটি পদক্ষেপ গ্রহণ করতে হবে।

  • চাহিদা পূর্ণ পন্য খুঁজে বের করতে হবে।
  • পণ্য সম্পর্কে আকর্ষণীয় শিরোনাম ব্যবহার করতে হবে।
  • ভালো মানের সহজ ইন্টারফেস একটি ওয়েবসাইট তৈরি করতে হবে।
  • ক্রেতা আপনার ওয়েবসাইটে নিয়ে আসার জন্য সার্চ ইঞ্জিন ব্যবহার করতে হবে।
  • গ্রাহকদের সাথে ভালো একটি সম্পর্ক তৈরি করতে হবে

এই সমস্ত বিষয় গুলো ফলো করে আপনি খুব সহজেই ই-কমার্স ব্যবসায় সফল হতে পারবেন।

২. ক্ষুদ্র ব্যবসার তালিকা হলো খেজুরের রস দিয়ে তৈরি গুড়ের ব্যবসা

আমাদের দেশে শীতের দিনে খেজুরের রস পাওয়া যায়। সেই রস দিয়ে খাঁটি গুড় তৈরি হয়। এই গুড়ের প্রতি মানুষের চাহিদা অনেক বেশি। কেননা মানুষ খাঁটি গুড় পছন্দ করে।

অতএব আপনি অল্প পুঁজি লাগিয়ে এ ব্যবসা শুরু করতে পারেন। এই ব্যবসার যে আপনি সরাসরি বিক্রি করতে পারেন আবার অনলাইনের মাধ্যমে বিক্রি করতে পারে। এ ব্যবসায় কিন্তু লাভ বেশি। সুতরাং আজকেই এ ব্যবসা শুরু করে দিন।

৩. কফি শপের ব্যবসা

এই ব্যবসাটি শুরু করার জন্য বেশি পুঁজি লাগবেনা। বরং অল্প পুঁজি দিয়ে এই ছোট ব্যবসাটি শুরু করতে পারেন। তবে এই ব্যবসাটি শুরু করার পূর্বে একটি চমৎকার স্থান বাছাই করবেন যেখানে লোকদের চলাচল বেশি, লোকজনের সমাগম বেশি। তাহলে আপনি খুব সহজেই সফলতা লাভ করবেন।

পাশাপাশি কফির কোয়ালিটি ভালো করবেন যাতে করে একবার খেলে দ্বিতীয়বার আবার খাইতে চায়। এই দুইটি জিনিস যদি মনে রেখে আপনি কফি শপের ব্যবসা করেন তার খুব দ্রুত সফলতার উচ্চ শিখরে পৌঁছে যাবেন।

৩. ক্ষুদ্র ব্যবসার তালিকা হলো পুরানো জিনিস বিক্রির ব্যবসা

পুরানো জিনিসের ব্যবসা অনেক চমৎকার। পুরানো জিনিস যেমন : বিভিন্ন আসবাবপত্র

  • বই খাতা
  • কম্পিউটার ল্যাপটপ মোবাইল
  • বিভিন্ন ধরনের শোপিস ইত্যাদি

এই সমস্ত জিনিস বর্তমানে প্রচুর বিক্রি হয়। বিশেষ করে অনলাইনে এ ধরনের জিনিস প্রচুর বিক্রি হয়। ভজন জিনিস বিক্রির নামকরা ওয়েবসাইটে রয়েছে।

আর ওয়েবসাইট এর নাম হলো bikroy.com বর্তমানে অনেক মানুষ নতুন জিনিস ক্রয় করতে পারে না আবার অনেকে ইচ্ছাকৃতভাবে নতুন জিনিস ক্রয় করে না বরং তারা পুরাতন জিনিস ক্রয় করে এই কারণে পুরাতন জিনিসের চাহিদা অনেক বেশি।

আপনি অল্প পুজিতে এই ছোটখাটো ব্যবসা শুরু করতে পারেন। এ ব্যবসায় যেরকম ভাবে চাহিদা রয়েছে ঠিক তেমনিভাবে লাভ অনেক বেশি। অতএব আপনি ব্যাবসা আজই শুরু করে দিন।

৪. ক্ষুদ্র ব্যবসার তালিকা হলো ফুলের দোকানের ব্যবসা

ফুল সবাই পছন্দ করে। এই ব্যবসায় অনেক চাহিদা রয়েছে। কেননা বর্তমানে বিভিন্ন বিবাহ অনুষ্ঠান , জন্মদিন ,কাউকে উপহার দেয়ার ক্ষেত্রে আবার বিভিন্ন দিবস উপলক্ষে প্রচুর ফুল ব্যবহৃত হয়।

এই কারণে ফুলের চাহিদা অনেক বেশি। ফুলের এত চাহিদা থাকা সত্ত্বেও বিক্রেতা কম। অতএব আপনি এ সুযোগটি গ্রহণ করতে পারেন। শহরে হোক অথবা গ্রামে হোক এই ব্যবসাটি করতে পারেন। এ ব্যবসা আপনি অল্প পুঁজি দিয়ে শুরু করতে পারেন।

৫. বিকাশের ব্যবসা

বর্তমান সময়ে সবচেয়ে জমজমাট একটি ব্যবসা। শহরে হোক অথবা গ্রামে হোক প্রতিটি ঘরে ঘরে বিকাশ পৌঁছে গেছে। বিকাশের চাহিদা দিন দিন বেড়েই চলছে। বর্তমান 80 থেকে 90 পারসেন্ট মানুষ বিকাশের মাধ্যমে লেনদেন করছে।

বুঝতে পারছেন বিকাশে চাহিদা কতটুক ? অতএব আপনি অল্প পুঁজি খাটিয়ে গ্রামে হোক অথবা শহরে হোক এই ব্যবসা শুরু করতে পারেন।

তবে একটি বিষয় অবশ্যই মনে রাখবেন দোকানটি এমন একটি স্থানে দিবেন যে স্থানে লোকসমাগম বেশি। তাহলে আপনার ব্যবসা দ্রুত অর্গাজম হবে। সময় নষ্ট না করে আজই বিকাশের ব্যবসা শুরু করে দেন।

৬ . ক্ষুদ্র ব্যবসার তালিকা হলো মোবাইল ঠিক করার ব্যবসা

বর্তমানে প্রত্যেকটি মানুষের হাতেই মোবাইল আছে। আর এই মোবাইল ফোন মাঝে মাঝে অনেক সমস্যা দেখা দেয়। তখন মোবাইল ঠিক করতে হয়। বুঝতে পারছেন এই ব্যবসার চাহিদা কত ? আপনি এই ব্যবসাটি শুরু করতে পারেন।

অর্থাৎ মোবাইল রিপেয়ারিং এর ব্যবসা করতে পারেন। এই ব্যবসার চাহিদা যেমন বেশি লাভ অনেক বেশি। ব্যবসা শুরু করতে পুঁজি খুব কম লাগবে। শুধু কয়েকটি যন্ত্র হাতি ও ট্রেনিং দিয়ে এ ব্যবসা শুরু করা যায়। কোথায় আপনি আজই ছ ব্যবসা শুরু করে দিন।

৮ . জুসের ব্যবসা

ফলের জুস খেতে সবাই পছন্দ করে। এই খাবারের চাহিদা অনেক বেশি। কিন্তু বিক্রেতা একদম কম। অতএব আপনি ব্যবসা শুরু করে খুব সহজেই সফলতা লাভ করতে পারবেন। জাম , আম , লেচু , তরমুজ, পেঁপে ইত্যাদি এই সব ধরনের ফলের জুস তৈরি করতে পারেন।

এ ব্যবসায় সফল হওয়ার জন্য অবশ্যই আপনাকে ভালো একটি স্থান বাছাই করতে হবে অর্থাৎ যে স্থানে লোকদের সমাগম বেশি এরকম স্থান বাছাই করতে হবে পাশাপাশি ভেজালমুক্ত জুস বিক্রি করতে হবে। তাহলে আপনি খুব সহজেই দ্রুত সফলতা লাভ করতে পারবেন।

৯. ক্ষুদ্র ব্যবসার তালিকা হলো চায়ের দোকানের ব্যবসা

চা জনপ্রিয় একটি খাবার। এই খাবারটি ছোট থেকে বড় সকলেই পছন্দ করে। এর চাহিদা প্রচুর রয়েছে। অতএব আপনি এই ব্যবসাটি শুরু করতে পারেন। অবশ্যই এ ব্যবসায় সফল হওয়ার জন্য লোক সমাগম এর স্থান বাছাই করতে হবে এবং ভালো মানের চা তৈরি করতে হবে।

যদি এই দুইটা জিনিস মেনে চা এর ব্যবসা শুরু করেন তাহলে আপনি খুব সহজেই এ ব্যবসায় সফলতা লাভ করতে পারবেন। এ ব্যবসা শুরু করতে পুঁজি খুব কম লাগে তাই আজই এ ব্যবসা শুরু করে দিন।

১০. কাঁচামালের ব্যবসা

কাঁচামাল চাহিদা পূর্ণ পণ্য। প্রতিটি মানুষেরই কাঁচামালের প্রয়োজন পড়ে। আপনি কাঁচামালের ব্যবসা দুইভাবে করতে পারেন। কাঁচামালের পণ্য গ্রাম থেকে ক্রয় করে শহরে বিক্রি করতে পারেন পাইকারি হিসেবে। অথবা আপনি শুধু খুচরা হিসাবে এ ব্যবসা শুরু করতে পারেন। এবং এ ব্যবসা শুরু করতে পুঁজি খুব কম লাগে। তাই এই সুযোগটি আপনি গ্রহণ করতে পারেন।

১১. ক্ষুদ্র ব্যবসার তালিকা হলো ফাস্ট ফুডের ব্যবসা

ধীরে ধীরে ফাস্টফুডের দোকান জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। বর্তমানে মানুষ ফাস্টফুডের খাবারগুলো খেতে পছন্দ করে। এ ব্যবসায় অনেক চাহিদা রয়েছে। অতএব আপনি ব্যবসাটি শুরু করতে পারেন। এই ব্যবসা শুরু করার জন্য পুঁজি বেশী লাগবেনা বরং অল্প পুজিতে এই ব্যবসা শুরু করতে পারেন।

পরিশেষে বলব : উপরে ক্ষুদ্র ব্যবসার তালিকা প্রায় ১১টি বলেছি। যদি বিষয়গুলো ফলো করেন তাহলে খুব সহজেই আপনি ব্যবসা করতে পারবেন। এবং সফলতা লাভ করতে পারবেন। যদি এই লেখাটিভালো লেগে থাকে এবং উপকার দিয়ে থাকে তাহলে অবশ্যই কমেন্ট করে জানাবেন। ধন্যবাদ ।

আরো পড়ুন :-

  1. কসমেটিকস পাইকারি বাজার কোথায় কোথায় রয়েছে ?
  2. ছাত্রদের জন্য ব্যবসা আইডিয়া ১৮টি যেগুলো খুবই লাভজনক
  3. টাকা ছাড়া ব্যবসা করার পদ্ধতি কি ?
  4. বর্তমানে সবচেয়ে লাভজনক ব্যবসা

Leave a Comment