নিজেই নিজের ভোটার আইডি কার্ড দেখবো কিভাবে ২০২২ ?

আপনার মনে কি নিজেই নিজের ভোটার আইডি কার্ড দেখবো কিভাবে এরকম প্রশ্ন রয়েছে ? আমারা যেহেতু বাংলাদেশের নাগরিক।

তাই আমাদের অবশ্যই ভোটার হতে হবে। আমরা যখন ভোটার হই। তখন আমাদের একটি ভোটার আইডি কার্ড দেওয়া হয় সরকারের পক্ষ থেকে।

অনেক সময় ভোটার আইডি কার্ড আমাদের হাতে আসতে অনেক সময় লাগে। কিন্তু ভোটার হওয়ার সাথে সাথে অনলাইনে ভোটার আইডি কার্ড পাওয়া যায়।

তাই অনেকেই ভোটার আইডি কার্ড দেখতে চায়। আজ আমি আপনার মনের প্রশ্ন অর্থাৎ নিজেই নিজের ভোটার আইডি কার্ড দেখবো কিভাবে এর উত্তর দিব।

এর ফলে আপনি খুব সহজেই আপনার ভোটার আইডি কার্ড দেখতে পারবেন।

নিজেই নিজের ভোটার আইডি কার্ড দেখবো কিভাবে

নিজেই নিজের ভোটার আইডি কার্ড দেখবো কিভাবে ?

আপনি যখন ভোটার হয়েছিলেন তখন একটি ফরম পূরণ করেছিলেন। সেই ফরমের নিচের অংশ আপনাকে দেওয়া হয়েছে ভোটার হওয়ার পর। ঐ নিচের অংশে ৮টি সংখ্যা রয়েছে। ঐ ৮টি সংখ্যা আমাদের লাগবে। ওই সংখ্যা ছাড়া আপনি আপনার ভোটার আইডি কার্ড দেখতে পারবেন না। 

যে সমস্ত বিষয় আপনার অবশ্যই লাগবে :

  • নিবন্ধন ফরমের স্লিপের ৮ সংখ্যার নাম্বার
  • জন্মতারিখ
  • নিজের বর্তমান স্থায়ী ঠিকানা
  •  কম্পিউটার অথবা স্মার্ট ফোন

অনলাইন থেকে আপনার আইডি কার্ড সংগ্রহ করুন

আপনি অনলাইনের মাধ্যমে আপনার ভোটার আইডি কার্ড খুব সহজেই দেখতে পারবেন। আইডি কার্ড দেখার জন্য সর্বপ্রথম আপনাকে নির্বাচন কমিশন বাংলাদেশ এর ওয়েবসাইটে ঢুকতে হবে।

এরপর আপনাকে রেজিস্ট্রেশন করতে হবে। এজন্য আপনাকে রেজিস্ট্রেশন বাটনে ক্লিক করতে হবে।

তারপর এরকম একটি ফর্ম আসবে।

নিজেই নিজের ভোটার আইডি কার্ড দেখবো কিভাবে

এই ফরমটি আপনাকে পূর্ণ করতে হবে। কোন কিছু না বুঝলে পাশে বিস্তারিত নিয়ম দেওয়া আছে। সমস্ত নিয়মগুলো ভালোভাবে বুঝে তারপর রেজিস্ট্রেশন করবেন।

এখানে আপনার ঐ স্লিপের ৮টি নাম্বার লাগবে। এরপর আপনি আপনার জন্ম তারিখ দিবেন। তারপর একটি কোড রয়েছে সেটি লিখে পূর্ণ করে দিবেন। এরপর সাবমিট বাটনে ক্লিক করবেন। এরকম একটা ফর্ম আসবে।

নিজেই নিজের ভোটার আইডি কার্ড দেখবো কিভাবে

এখানে আপনার ঠিকানাগুলো সাবমিট করব। গুরুত্বসহকারে যাতে করে কোনো ভুল না হয়। এরপর পরবর্তী বাটনে ক্লিক করবেন।

আপনাকে পরবর্তী পেজে নিয়ে যাবে। সেখানে আপনার মোবাইল নাম্বারে একটি কোড পাঠাবে। যদি কোন ক্রমে আপনার ঐ মোবাইল নাম্বার ব্যবহার না করেন।

এক্ষেত্রে নতুন একটি নাম্বার যুক্ত করতে পারেন। সে নাম্বারে একটি কোড আসবে। আপনাকে ওই কোডটি দিয়ে পূর্ণ করতে হবে। এরপর নিচের পেজ এর মত একটি পেজ আসবে।

নিজেই নিজের ভোটার আইডি কার্ড দেখবো কিভাবে

আপনার ফেস ভেরিফিকেশন এর জন্য গুগল প্লে স্টোরে গিয়ে NID WALLET নামক অ্যাপটি ডাউনলোড করতে হবে। এরপর এই অ্যাপ দিয়ে আপনার উল্লেখিত QR কোডটি স্ক্যান করতে হবে।

এরপর আপনার ফেস ভেরিফিকেশন এর জন্য একটা অপশন আসবে। সেখানে আপনি আপনার সেলফি ক্যামেরা দিয়ে সোজাসুজিভাবে তাকাবেন।

এরপর ওকে বাটনে ক্লিক করুন। তারপর আবার ডানে-বামে মাথা ঘুরাবেন। এরপর ওকে বাটনে ক্লিক করুন।

তারপর নতুন একটি পেজ আসবে। আপনাকে স্বাগতম জানাবে। তখন এই এপের কাজ শেষ যাবে। আবার আগের যায়গায় ফিরে জাবেন ।

তারপর ইউজার নেম পাসওয়ার্ড দিয়ে আপডেট করবেন। তখন সেখানে এরকম পেজ দেখতে পারবেন ।

নিজেই নিজের ভোটার আইডি কার্ড দেখবো কিভাবে

এখান থেকে আপনি ভোটার আইডি কার্ড দেখতে পারবেন । আবার ডাউনলোড করতে পারবেন। আশাকরি আপনার প্রশ্ন তথা নিজেই নিজের ভোটার আইডি কার্ড দেখবো কিভাবে ? এর উত্তর পেয়ে গেছেন ।

এরপর আপনি আপনার ভোটার আইডি কার্ড দেখতে পারবেন। খুব সহজে সেখান থেকে ডাউনলোড করতে পারবেন। আশাকরি আপনার প্রশ্ন তথা নতুন আইডি কার্ড কিভাবে দেখব এর উত্তর পেয়ে গিয়েছেন ।

পরিশেষে বলব : আশাকরি উপরে উল্লেখিত নিজেই নিজের ভোটার আইডি কার্ড দেখবো কিভাবে ? এ সম্পর্কে মোটামুটি ধারণা দিতে পেরেছি। ভালো লাগলো জানাবেন ধন্যবাদ।

আরো পড়ুন : ইংরেজি শেখার সহজ উপায়

Leave a Reply

Your email address will not be published.

5 × 3 =