ফি আমানিল্লাহ অর্থ কি ? | ফি আমানিল্লাহ কেন বলা হয় ?

ফি আমানিল্লাহ অর্থ কি এ সম্পর্কে আপনি কি জানতে চান ? তাহলে এই আর্টিকেলটি আপনার জন্য।

ফি আমানিল্লাহ অনেক গুরুত্বপূর্ণ শব্দ । এটা বিভিন্ন ক্ষেত্রে মানুষ ব্যবহার করে থাকে।

এই শব্দটি বা এই বাক্যটি অনেক পরিচিত বা প্রসিদ্ধ। আমরা সকলেই এটা সম্পর্কে পরিচিত। কিন্তু এর অর্থ কি ও কোথায় ব্যবহার করা হয় এ সম্পর্কে আমরা অনেকেই জানিনা।

তাই আজ আমি ফি-আমানিল্লাহ অর্থ কি ও ফি আমানিল্লাহ বলা জায়েজ আছে কিনা ? এটা কেন বলা হয় ? ও ফি আমানিল্লাহ এর জবাব কি বলতে হয় ? ইত্যাদি এসব নানান বিষয় নিয়ে আলোচনা করব ।

অতএব আপনি যদি এ সমস্ত প্রশ্নের উত্তর জানতে চান তাহলে সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ুন। তাহলে আপনি আপনার উত্তর পেয়ে যাবেন।

ফি আমানিল্লাহ অর্থ কি

ফি আমানিল্লাহ অর্থ কি ?

অর্থ বলার আগে ফি আমানিল্লাহ সম্পর্কে নানান বিষয়ে আলোচনা করব। যাতে করে ফি আমানিল্লাহ সম্পর্কে পরিপূর্ণ ধারণা হয়ে যায় এবং এর গুরুত্ব বুঝে আসে। কেননা এটা অনেক সেনসিটিভ বিষয়।

অনেকেই নানান মন্তব্য করেছে এটা সম্পর্কে। আশা করি আপনি পুরো লেখাটি পড়বেন। তাহলে ইনশাআল্লাহ ফি আমানিল্লাহ সম্পর্কে পরিপূর্ণ ধারণা পাবেন। চলুন আলোচনা শুরু করা যাক।

ফি আমানিল্লাহ কেন বলা হয় ?

বিভিন্ন উদ্দেশ্যে ফি আমানিল্লাহ বলা হয় । কয়েকটি উদ্দেশ্যে বলা হলো :

  • স্বাভাবিক দোয়ার উদ্দেশ্যে ব্যবহার করা হয়
  • কেউ যদি ভ্রমণ করে বা সফর করে রাস্তায় তার নিরাপত্তার জন্য ফি আমানিল্লাহ বলা হয়।
  • বিপদ আপদের দোয়ার ক্ষেত্রেও এটা ব্যবহার করা হয়।
  • অসুস্থতার দোয়ার ক্ষেত্রেও ফি আমানিল্লাহ ব্যবহার করা হয়।
  • কাউকে বিদায় দেওয়ার ক্ষেত্রেও এটি ব্যবহার হয়।

ইত্যাদি এরকম আরো অনেক উদ্দেশ্যেই ফি আমানিল্লাহ ব্যবহার করা হয়।

আরো পড়ুন :

ফি আমানিল্লাহ শব্দের অর্থ কি ?

 ফি আমানিল্লাহ ( في امان الله ) এটা মূলত আরবি শব্দ ।

শাব্দিকভাবে এর অর্থ । এখানে তিনটি শব্দ রয়েছে।

  • ফি এর অর্থ (মধ্যে) । এখানে অর্থ হবে (য়)
  • আমানুন অর্থ নিরাপত্তা
  • আল্লাহ 

পারিভাষিক অর্থ : আল্লাহর নিরাপত্তায় । অর্থাৎ আল্লাহ তালার নিরাপত্তায় আপনাকে ছেড়ে দিলাম।

ফি আমানিল্লাহ ইংরেজি কি ?

ফি আমানিল্লাহ অর্থ কি

মূলত ফি আমানিল্লাহ এর জন্য কোন ইংরেজি শব্দ নেই। আমরা সকালবেলায় ঘুম থেকে উঠে যে গুড মর্নিং বলি । প্রকৃতপক্ষে গুড মর্নিং বললে কোন ধরনের লাভ হয় না।

পাশাপাশি কোন ধরনের নেকী হয় না অর্থাৎ সওয়াব হয়না এবং রাত্রিবেলায় ঘুমানোর পূর্বে আমরা যে গুডনাইট বলে থাকি। এই গুড নাইট বলার ক্ষেত্রেও কোন ধরনের লাভ হয় না এবং সওয়াব পাওয়া যায় না। এটা ইসলামিক সাংস্কৃতিক না।

অতএব আপনি যদি গুড মর্নিং এবং গুড নাইট এর পরিবর্তে ফি আমানিল্লাহ বলেন। এর দ্বারা আপনি অনেক সওয়াব পাবেন। তাই প্রতিদিন সকালে ঘুম থেকে উঠে এবং রাত্রে বেলায় ঘুমানোর আগে ফি আমানিল্লাহ এর দোয়ার অভ্যাস করুন।

এটা ইসলামিক সংস্কৃতিক । আর ইসলাম আমাদেরকে এটাই শিক্ষা দেয়। অর্থাৎ একজন আরেকজনের জন্য দোয়া করা। আর এই দোয়ার মাধ্যমে আল্লাহ তা’আলা দুনো পক্ষকেই নিরাপদে রাখেন এবং আল্লাহ তায়ালা রহমত বরকত অবতীর্ণ করেন।

আশা করি আপনি প্রত্যেকবার বলার সময় অনেক সওয়াব পাবেন এবং আশা করা যায় আল্লাহ তা’আলা এর মাধ্যমে আপনি যার জন্য দোয়া করছেন তাকে বিভিন্ন বিপদ-আপদ থেকে হেফাজত করবেন। আমরা এই কথা দ্বারা এটাই বুঝতে পারলাম ফি আমানিল্লাহ এর ইংরেজি নেই।

ফি আমানিল্লাহ কখন বলতে হয় ?

ফি আমানিল্লাহ বলার কয়েকটি সময় রয়েছে। ওই সময় গুলো হল :

  • কারো অসুস্থতার ক্ষেত্রে দোয়া হিসেবে এটা বলা হয়।
  • কোন সফর বা ভ্রমণের ক্ষেত্রে নিরাপত্তার জন্য দোয়া হিসেবে এটা বলা হয়।
  • বিভিন্ন রকম বিপদ-আপদের ক্ষেত্রে এটা বলা হয়।
  • বিভিন্ন রকম দোয়ার ক্ষেত্রে এটা বলা হয়।
  • ঘুম থেকে উঠে এটা বলা হয়।
  • ঘুমানো যাওয়ার সময় ফি আমানিল্লাহ বলা হয়।
  • আপন মানুষ বিদায় দেওয়ার সময় এটা বলা হয়।

উপরে উল্লেখিত এরকম ক্ষেত্রে ফি আমানিল্লাহ সাধারণত ব্যবহার করা হয়।

কেউ দোয়া চাইলে ফি আমানিল্লাহ বলা জায়েজ আছে কিনা ? 

কেউ যদি কারো কাছে দোয়া চায় স্বাভাবিকভাবে কোন ধরনের শর্ত যুক্ত ছাড়াই তাহলে এক্ষেত্রে ফি আমানিল্লাহ বলা জায়েজ আছে।

এক্ষেত্রে কোন ধরনের সমস্যা নেই। কেননা আমানিল্লাহ অর্থ হল আল্লাহতালা আপনাকে হেফাজত করুন , নিরাপদ রাখুন।

এই দোয়াটি চমৎকার একটি দোয়া। তাই আপনি নির্দ্বিধায় এই দোয়াটি করতে পারেন ওই ব্যক্তির জন্য যে আপনার কাছে সাধারণভাবে দোয়া চাবে।

ফি আমানিল্লাহ বলা কি বিদআত ? 

না এটা কোন বেদআত নয়। বরং এটা একটি দোয়া। একজন ব্যক্তি আরেকজন ব্যক্তির নিরাপত্তার জন্য দোয়া করা। অর্থাৎ একজন ব্যক্তি অপর এক ব্যক্তির জন্য এই দোয়া করা যে , আল্লাহ তায়ালা যেন আপনাকে নিরাপদে রাখেন ।

তবে এটা কোন হাদিসের দোয়া নয়। অতএব যারা বলে ফি আমানিল্লাহ বলা বিদায়াত তাদের বক্তব্য সঠিক নয়। বরং তাদের বক্তব্য বা ধারণা ভ্রান্ত।

ফি আমানিল্লাহ এর জবাব কি ?

ফি আমানিল্লাহ এর জবাব
ফি আমানিল্লাহ জবাব

প্রথম কথা হল ফি আমানিল্লাহ এর কোন জবাব নেই। কেননা এটার অর্থ হল আল্লাহর নিরাপত্তায় । এখানে তো কোনো ধরনের জবাব আসে না। অতএব এর কোন ধরনের জবাব নেই। বরং এটা কারো জন্য দোয়া করার ক্ষেত্রে ব্যবহার করা হয়।

অর্থাৎ একজন ব্যক্তি আরেকজন ব্যক্তির জন্য এইভাবে দোয়া করা যে, আল্লাহ তাআলা আপনাকে নিরাপদে রাখুক, হেফাজতে রাখুক , আল্লাহ তাআলা আপনাকে কল্যাণ দান করুক। সব সময় চেষ্টা করব সকলের জন্য এরকম দোয়া করা । আল্লাহ তাআলা আমাদেরকে তৌফিক দান করুন।

পরিশেষে বলব : উপরে ফি আমানিল্লাহ অর্থ কি এ সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করা হলো।

এবং ফি আমানিল্লাহ্ উত্তরে কি বলতে হয় তা আলোচনা করা হলো। অতএব আপনি যে কারো জন্য দোয়া করার ক্ষেত্রে ফি আমানিল্লাহ বলতে পারবেন। কেননা এর অর্থ অনেক সুন্দর।

যদি আপনাদের ফি আমানিল্লাহ সম্পর্কে উপরের লেখা আর্টিকেলটি যদি ভালো লাগে। তাহলে অবশ্যই কমেন্ট করে জানাবেন এবং শেয়ার করবেন। ধন্যবাদ।

আরো পড়ুন :

ফি আমানিল্লাহ বললে কি বলতে হয় ?

এর পরিপেক্ষিতে কিছুই বলতে হয় না। কেননা কেউ কারো কাছে দোয়া চাইলে এর পরিপেক্ষিতে ফি আমানিল্লাহ বলা হয় আর ফি আমানিল্লাহ বলার পর কোন কিছুই বলতে হয় না।

ফি আমানিল্লাহ উত্তরে কি বলতে হয় ?

এর উত্তরে কোন কিছু বলার প্রয়োজন নেই । কেননা আমানিল্লাহ অর্থ হল আল্লাহতালা আপনাকে হেফাজত করুন , নিরাপদ রাখুন। এইটা চমৎকার একটি দোয়া।

4 thoughts on “ফি আমানিল্লাহ অর্থ কি ? | ফি আমানিল্লাহ কেন বলা হয় ?”

  1. খুউব ভালো উপদেশ মুলক আলোচনা। অনেকের উপকারে আসবে। জাযাকাল্লাহ!

    Reply

Leave a Comment