অনলাইনে ট্রেনের টিকিট কাটার নিয়ম

আপনার কি জানার ইচ্ছা আছে অনলাইনে ট্রেনের টিকিট কাটার নিয়ম ? কেননা লাইনে দাঁড়িয়ে টিকিট কাটা রেলওয়ে স্টেশনে যেয়ে  অনেক কঠিন।

আবার অনেক সময় প্রচুর ভিড় হওয়ার কারণে লাইনে দাঁড়িয়ে টিকিট কাটা সর্বাধিক কঠিন হয়ে পড়ে। আবার অনেক সময় টিকিট পাওয়া যায় না লাইনে দাড়িয়ে থেকেও ।

তবে সময়ের পরিবর্তনে বর্তমানে ঘরে বসে অনলাইনে বিকাশের মাধ্যমে ট্রেনের টিকিট কাটতে পারবেন কোন টেনশন ছাড়াই এবং কোন ধরনে ঝামেলা ছাড়াই ।

কিভাবে আপনি টিকিট ক্রয় করবেন ও অনলাইনে ট্রেনের টিকেট কাটার নিয়ম সম্পর্কে আজ আমি বিস্তারিত আলোচনা করব। পাশাপাশি যে সমস্ত নতুন নতুন নিয়ম এসেছে সেগুলো বলব।

অনলাইনে ট্রেনের টিকিট কাটার নিয়ম

অনলাইনে ট্রেনের টিকিট কাটার নিয়ম

সর্বপ্রথম বাংলাদেশ রেলওয়ে নামক ওয়েবসাইটে যেতে হবে ট্রেনের টিকিট ক্রয় করার জন্য ।

ওয়েবসাইটের ঠিকানা হলো : esheba.cnsbd.com তারপরে  উপরে register নামক অপশনে ক্লিক করবেন।

আপনি আপনার সমস্ত তথ্য দিয়ে এই পেজটি পূরণ করবেন। অর্থাৎ নাম , ইমেইল এড্রেস , মোবাইল নাম্বার , পাসওয়ার্ড দিয়ে এই পেজটি পূরণ করবেন।

তারপর sign up অপশন এ ক্লিক করবেন। আপনি যে ফোন নাম্বার দিয়েছিলেন সেই ফোন নাম্বারে 6 ডিজিটের ভেরিফিকেশন কোড আসবে।

আপনি সে কোডটি এখানে পেস্ট করবেন।

এরপর verify অপশনে ক্লিক করবেন। তারপর আপনাকে অটোমেটিক ভাবে লগইন করার জন্য লগইন নামক পেজে নিয়ে যাবে।

ইমেইল আইডি অথবা ফোন নাম্বার এবং পাসওয়ার্ড দিয়ে লগইন করে ফেলবেন। তারপর আপনার প্রোফাইল টা আপডেট করতে হবে।

এর জন্য নাম, জন্ম তারিখ, অ্যাড্রেস, পোস্ট কোড, জেন্ডার এবং ন্যাশনাল আইডি কার্ড অথবা জন্ম নিবন্ধন কার্ডের নাম্বার লাগবে।

এ সমস্ত জিনিস দিয়ে আপনার প্রোফাইলটা আপডেট করবেন। তারপর Home নামক পেজ এ ক্লিক করবেন।

তারপর এখানে সর্বপ্রথম আপনি কোথায় থেকে কোথায় যাবেন এগুলো নির্ধারণ করবেন। তারপর কত তারিখে যাবেন , কিরকম সিটে বসবেন , কয়জন লোক যাবেন ইত্যাদি ।

এই সমস্ত বিষয় লেখে Find নামক অপশনে ক্লিক করবেন। এরপর আপনাকে অন্য আরেকটি পেজ-এ নিয়ে যাবে।

তারপর সেখানে আপনি Details নামক অপশনে ক্লিক করবেন। সেখানে আপনার সমস্ত ডিটেলস চলে আসবে।

সব ঠিকঠাক যদি থাকে তাহলে Purchase নামক অপশনে ক্লিক করবেন। তারপর আপনাকে অন্য আরেকটি পেজ-এ নিয়ে যাবে।

সেখানে টিকিটের ব্যাপারে সমস্ত ডিটেইলস থাকবে। যদি সব কিছু ঠিক থাকে। তাহলে Buy Ticket অপশনে ক্লিক করবেন।

তারপর Agree অপশনে ক্লিক করবেন । তারপর আপনাকে বলবে পেমেন্ট মেথড নির্ধারণ করতে।

বিকাশের মাধ্যমে ট্রেনের টিকিট

আপনি বিকাশের মাধ্যমে ট্রেনের টিকিট কাটতে পারবেন। ইচ্ছে করলে রকেট থেকে কাটতে পারবেন।

পাশাপাশি আরও কয়েকটি ব্যাংক থেকে কাটতে পারবেন। যেমন সিটি ব্যাংক , বি আর এ সি ব্যাংক ইত্যাদি।

তারপর আপনি পেমেন্ট মেথড নির্ধারণ করে টাকা দিয়ে দিবেন। টাকা দেওয়ার পরপরই তারা আপনাকে একটি ইমেইল এর মাধ্যমে আপনার টিকেট দিয়ে দিবে।

অনলাইনে ট্রেনের টিকিট কাটার সময়

অনলাইনের মাধ্যমে আপনি যেকোন সময় অর্থাৎ 24 ঘন্টা চাই রাত হোক অথবা দিন হোক ট্রেনের টিকেট ক্রয় করতে পারবেন।

কোন ধরনের বাধা নিষেধ নাই এবং কোন ঝামেলা নেই  বরং আপনার ইচ্ছা মত কাটতে পারবেন ।

ট্রেনের টিকিট অগ্রিম ক্রয় করার ক্ষেত্রে নতুন নিয়ম

অনলাইনে ট্রেনের টিকিট অগ্রিম কাটার নতুন নিয়ম জারি করেছে রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ। আগে ট্রেনের টিকেট 10 দিন আগে কাটা যেত। 5 এপ্রিলের পর থেকে 5 দিন আগে ট্রেনের অগ্রিম টিকিট ক্রয় করা যাবে।

অনলাইনে ট্রেনের টিকিট ফেরত দেওয়ার নিয়ম বাংলাদেশ

১/ ট্রেন ছাড়ার 48 ঘণ্টা আগে যদি টিকেট ফেরত দেওয়া হয় তাহলে শুধু সার্ভিস চার্জ কাটা হবে। এই হিসেবে এসি টিকিটের ক্ষেত্রে 40 টাকা কাটা হবে।

প্রথম শ্রেণীর ক্ষেত্রে 30 টাকা। এবং অন্যান্য টিকিটের ক্ষেত্রে 25 টাকা কাটা হবে।

২/ আর যদি কেউ ট্রেন ছাড়ার 48 ঘণ্টার কম সময় বাকি থাকা অবস্থায় টিকিট ফেরত দেয়।

তাহলে তার কাছ থেকে 25% টাকা কেটে রাখা হবে। তারপর বাকি যা থাকবে তা ফেরত দেওয়া হবে।

৩/ আর যদি কেউ 24 ঘন্টার কম সময় বাকি থাকা অবস্থায় ট্রেনের টিকিট ফেরত দেয় তবে 12 ঘন্টার বেশি সময় থাকে।

তাহলে এক্ষেত্রে তার কাছ থেকে 50% টাকা কাটা হবে। তারপর বাকি যা থাকবে তা ফেরত দেওয়া হবে।

৪/ কেউ যদি 12 ঘণ্টার কম সময়ে টিকিট ফেরত দিতে চায় তবে 6 ঘন্টার বেশি সময় থাকে।

তাহলে এক্ষেত্রে ওই ব্যক্তির 75% টাকা কেটে রাখা হবে। তারপর বাকি টাকা ফেরত দেয়া হবে।

৫/ কেউ যদি ট্রেন ছাড়ার ছয় ঘন্টার কম সময়ের মধ্যে টিকিট ফেরত দিতে চায় তাহলে তার টিকিট ফেরত নেয়া হবে না।

পরিশেষে বলব : আমি এতক্ষণ অনলাইনে ট্রেনের টিকিট কাটার নিয়ম বিকাশের মাধ্যমে ট্রেনের টিকিট ইত্যাদি নিয়মাবলী সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করলাম।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

4 × five =